আজ সোমবার, , ২০ নভেম্বর ২০১৭ ইং

স্পোর্টস ডেস্ক

১৯ অক্টোবর, ২০১৭ ১০:২১

নেইমার কাভানি এমবাপের গোলে পিএসজির বড় জয়

ক্লাব ফুটবলে বিশ্বের সবচেয়ে ভয়ঙ্কর আক্রমণত্রয়ী নেইমার-কাভানি-এমবাপের গোলে বড় ব্যবধানে জিতেছে পিএসজি। চ্যাম্পিয়ন্স লিগে আন্ডারলেখটকে তাই তাদের মাঠেই ৪ গোল দিয়ে মাঠ ছাড়ে নেইমারের দল।

এই তিন ফরোয়ার্ডের গোল আর বদলি হিসেবে নামা আনহেল দি মারিয়ার লক্ষ্যভেদে বেলজিয়ামের দলটিকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ‘বি’ গ্রুপে শতভাগ সাফল্যের ধারা ধরে রাখল উনাই এমেরির দল।

ম্যাচের তৃতীয় মিনিটেই এগিয়ে যায় পিএসজি। ইতালিয়ান মিডফিল্ডার মার্কো ভেরাত্তির বাড়ানো বল ডি-বক্সে ডান দিকে ধরেন এমবাপে। ফরাসি এই ফরোয়ার্ড নেইমারদের ক্রস না বাড়িয়ে দুরূহ কোণ থেকেই গোলরক্ষকের পায়ের নিচ দিয়ে বল পাঠিয়ে দেন জালে।

আক্রমণভাগের তিন তারকার ছোঁয়ায় ৪৪তম মিনিটে ব্যবধান বাড়ে। নেইমারের জোরালো উঁচু শট কোনোমতে ফিরিয়েছিলেন গোলরক্ষক সেলস। বল ডানে এমবাপের কাছে যেতেই হেডে পাঠান ছোটো ডি-বক্সে থাকা কাভানিকে। উরুগুয়ের স্ট্রাইকারও প্রথম সুযোগেই হেডে ফাঁকা জালে বল পাঠিয়ে দেন।

৬৬তম মিনিটে কাঙ্ক্ষিত গোল পেয়ে যান শুরু থেকেই দুর্দান্ত খেলা নেইমার। ফ্রি-কিকে ব্রাজিলের ফরোয়ার্ড বুদ্ধিদীপ্ত গড়ানো শট নেন। রক্ষণ দেয়াল তৈরি করা খেলোয়াড়রা বরাবরের মতো লাফিয়ে ওঠায় বল পায়ের নিচ দিয়ে চলে যায় জালে।

নির্ধারিত সময়ের দুই মিনিট আগে গোলরক্ষকের মাথার উপর দিয়ে জালে পাঠিয়ে বড় জয় নিশ্চিত করেন কাভানির বদলি হিসেবে নামা দি মারিয়া।

আগের দুই ম্যাচে সেল্টিককে ৫-০ ও বায়ার্ন মিউনিখকে ৩-০ গোলে উড়িয়ে দেওয়া পিএসজি তিন ম্যাচে পুরো ৯ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষেই থাকল। আগের দুই ম্যাচে বায়ার্ন মিউনিখ ও সেল্টিক – দুই দলের কাছেই ৩-০ গোলে হারা আন্ডারলেখট রইল তলানিতেই।

‘বি’ গ্রুপের অন্য ম্যাচে নিজেদের মাঠ আলিয়াঞ্জ অ্যারেনায় সেল্টিককে ৩-০ গোলে হারানো বায়ার্ন মিউনিখ ৬ পয়েন্ট নিয়ে আছে দ্বিতীয় স্থানে। তিন ম্যাচে স্কটিশ দল সেল্টিকের পয়েন্ট ৩।

বুধবার রাতে কাম্প নউয়ে ‘ডি’ গ্রুপে গ্রিক ক্লাব অলিম্পিয়াকোসকে ৩-১ গোলে হারিয়েছে বার্সেলোনা। প্রথমার্ধে আত্মঘাতী গোলে স্বাগতিকরা এগিয়ে যাওয়ার পর দ্বিতীয়ার্ধে একটি গোল করার পাশাপাশি লুকাস দিনিয়ের গোলে অবদান রাখেন লিওনেল মেসি।

গ্রুপের অন্য ম্যাচে স্পোর্তিং লিসবনকে ২-১ গোলে হারিয়ে ৬ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে ইতালির চ্যাম্পিয়ন ইউভেন্তুস। ৩ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্পোর্তিং। অলিম্পিয়াকোসের পয়েন্ট শূন্য।

‘এ’ গ্রুপে পর্তুগালের আরেক দল বেনফিকাকে ১-০ গোলে হারিয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। টানা তিন জয়ে ৯ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে রয়েছে জোসে মরিনিয়োর দল। ৬ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় সিএসকে মস্কোর মাঠ থেকে ২-০ গোলের জয় নিয়ে ফেরা বাসেল।

‘সি’ গ্রুপের দুটি ম্যাচই ড্র হয়েছে। স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে রোমাঞ্চকর ম্যাচে রোমার সঙ্গে ৩-৩ ড্র করা চেলসি ৭ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে। ৫ পয়েন্ট নিয়ে ইতালির রোমা রয়েছে দ্বিতীয় স্থানে।

কারাবাখের মাঠে গোলশূন্য ড্র করা আতলেতিকো মাদ্রিদ ২ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে আছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত