আজ বৃহস্পতিবার, , ২৫ মে ২০১৭ ইং

বড়লেখায় চাঁদা না পেয়ে পানগাছ কর্তন, আদালতে মামলা

প্রকাশিত: ২০১৭-০১-০৯ ১৯:৪২:১৮

   আপডেট: ২০১৭-০১-০৯ ১৯:৪৭:৫৩

বড়লেখা প্রতিনিধি

মৌলভীবাজারের বড়লেখায় ১ লাখ টাকা চাঁদা দাবী করে না পেয়ে সংঘবদ্ধ চাঁদাবাজরা একটি খাসিয়া পুঞ্জির পানজুমের প্রায় ৩ হাজার পানগাছ কেটে ফেলেছে। এতে ৪ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় সোমবার (৯ জানুয়ারি) বড়লেখা সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ভুক্তভোগী সুক খাসিয়া ১৭ চাঁদাবাজের বিরুদ্ধে পিটিশন মামলা (মামলা নং-১/১৭) করেছেন। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে ঘটনার সত্যতা যাচাই পূর্বক এফআইআর করতে ওসি বড়লেখাকে নির্দেশ দিয়েছেন।

আদালতের মামলা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার দক্ষিণভাগ ইউনিয়নের নিউ সমনবাগ চা বাগানের মোকাম সেকশনের বাসিন্দা শংকর রিকমুন, বাসু রিকমুন, সল্টু গং গত কয়েক দিন ধরে ৭নং মাধব পুঞ্জির মৃত বিপুল খাসিয়ার ছেলে সুক খাসিয়ার নিকট ১ লাখ টাকা চাঁদা দাবী করে আসছে। অন্যথায় পানজুমের পানগাছসহ অন্যান্য গাছপালা কেটে ফেলার হুমকি প্রদান করে। রোববার বিকেলে তাদের নেতৃত্বে সহযোগী সুমন, রমেন, হরেণ, চন্দ্র, প্রদীপ, গনেন্দ্র, রাকেশ রায়, রাজু গংরা সুক খাসিয়ার মালিকানাধীন মাধব পুঞ্জির পান জুমে প্রবেশ করে পানগাছ ও সুপারি গাছ কাটতে থাকে। বাঁধা দিতে গেলে দুর্বৃত্তরা জুম মালিক সুক খাসিয়াকে ধরে নিয়ে যায়। পরে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আজির উদ্দিন চাঁদাবাজ দুর্বৃত্তদের কবল থেকে তাকে উদ্ধার করেন।

এ ব্যাপারে বড়লেখা থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ সহিদুর রহমান জানান, ‘আদালতে মামলা হয়েছে শুনেছি। আদালতের নির্দেশনার কপি থানায় পৌঁছালে এফআইআর করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

আদালতের এপিপি অ্যাডভোকেট গোপাল দত্ত পানগাছ, সুপারি গাছ কর্তন ও চাঁদা দাবীর ঘটনায় আদালতে পিটিশন মামলা রুজুর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত