আজ বুধবার, , ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৭ ইং

সিলেটটুডে ডেস্ক

১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ২০:১০

মাজারে দুই নারী হত্যা: সেক্সচুয়াল আলামত জব্দ

মুন্সীগঞ্জ শহরের কাটাখালির ভিটিশিলমন্দি এলাকায় বারেক লেংটার মাজারে দু’নারীকে হত্যার আগে ধর্ষণ করা হয় বলে ধারণা করছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (১২ সেপ্টেম্বর) মধ্যরাতে দুর্বৃত্তরা ওই দু’নারীকে গলাকেটে হত্যা করে। বুধবার সকালে পুলিশ নিহতদের লাশ উদ্ধার করে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে কনডম, যৌন উত্তেজক বড়ি উদ্ধার করা হয়।

হত্যাকাণ্ডের পেছনে জমি সংক্রান্ত বিরোধ থাকতে পারে বলে পুলিশ ধারণা করছে।

নিহতরা হলেন— মাজারের খাদেম আমেনা বেগম (৬০) ও ভক্ত তাইজুন খাতুন (৪৮)। তার বাড়ি সদর উপজেলার বকচর। আমেনা খাতুন মাজারের খাদেম হিসেবে কাজ করতেন। ভক্ত তাইজুন প্রায়ই এখানে আসতেন। ঘটনার দিন রাতে তারা দু’জন মাজারের ভেতরে ছিলেন।

মাজারের খাদেম মাসুদ খান জানান, রাতে খাদেম আমেনা বেগম ও ভক্ত তাইজুন খাতুন মাজারের ভেতর ছিলেন। সকাল এসে মাজারে তাদের গলাকাটা লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেন। মধ্যরাতে এই ঘটনা ঘটে থাকতে পারে বলে জানান তিনি।

নিহত তাইজুনের ছেলে কফিল উদ্দিন জানান, তার মা এই মাজারের একজন ভক্ত ছিলেন। তিনি প্রায়ই এখানে আসতেন। গতকাল বিকেলে এখানে এসে রাতে আর বাড়ি ফিরেননি। বুঝতে পারছিনা কেন এমন হল।

মুন্সীগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোস্তাফিজুর রহমান জানান, খবর পেয়ে বুধবার সকালে মাজার থেকে ওই দুই নারীর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মুন্সীগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

তিনি বলেন, ঘটনাস্থলে আমরা সেক্সচুয়াল কিছু আলামত পেয়েছি। ধারণা করছি হত্যাকাণ্ডের আগে তাদেরকে ধর্ষণ করা হতে পারে।

জমি সংক্রান্ত বিরোধের কথা শুনেছি। সব বিষয় মাথায় রেখে তদন্ত চলছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট ও তদন্ত শেষে বিস্তারিত বলা সম্ভব হবে বলে জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা। ঘটনার সাথে জড়িতদের খুঁজে বের করার জন্য কাজ শুরু করেছে পুলিশ।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত